ক্যাটাগরি: উপকূলীয় ও সামূদ্রিক | মাৎস্য ব্যবস্থাপনা | লাইভলিহুড

ইলিশের গ্রাম নাইয়াপাড়া: কেবলই অতীত সুখ স্মৃতি

ইলিশের গ্রাম নাইয়াপাড়া

ইলিশের গ্রাম নাইয়াপাড়া

নাইয়াপাড়া বৃহত্তর নোয়াখালীর লক্ষ্মীপুর জেলার রায়পুর উপজেলা সদর থেকে ১৮ কিলোমিটার দক্ষিণ পশ্চিমে অবস্থিত চরবংশী ইউনিয়নের মেঘনার পাড়ে হতদরিদ্র গ্রাম নাইয়াপাড়া। মেঘনা নদীতে মাছ ধরাই এ গ্রামের অধিকাংশ লোকের পেশা। পূর্বে মেঘনা নদীতে প্রচুর ইলিশ মাছ ধরা পড়তো। তখন এ গ্রামের লোকেরা ছিল সচ্ছল। নির্বিচারে কারেন্ট জালে জাটকা নিধন ও মহাজনী দাদন ব্যবসাসহ বিভিন্ন সমস্যায় …বিস্তারিত

ক্যাটাগরি: উপকূলীয় ও সামূদ্রিক | মাৎস্য জীববৈচিত্র্য | মাৎস্য ব্যবস্থাপনা | লাইভলিহুড | স্বাদুপানি

বাংলাদেশে কোথায় কখন কোন মাছ ধরা নিষিদ্ধ

মাছ ধরা নিষিদ্ধ

মাছ ধরা নিষিদ্ধ

বাংলাদেশের মৎস্য সম্পদ রক্ষা ও উন্নয়নের লক্ষ্যে বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ জলাশয় যেমন- নদী, উপকূলীয় এলাকা, সমুদ্র, হ্রদ ইত্যাদির সুনির্দিষ্ট অংশে বছরের কোন না সময় বিভিন্ন ধরণের মাছ ধরা নিষিদ্ধ থাকে। বাংলাদেশে কোথায় কখন কোন মাছ ধরা নিষিদ্ধ সে সম্পর্কে একটা ধারনা পেতে বিগত এক বছর কোথায় কখন মাছ ধরা নিষিদ্ধ ছিল সে সব তথ্যের উপর ভিত্তি করে এই লেখাটি সাজানো হয়েছে।

বাংলাদেশের …বিস্তারিত

ক্যাটাগরি: উপকূলীয় ও সামূদ্রিক | মাৎস্য ব্যবস্থাপনা | লাইভলিহুড

সামুদ্রিক জেলেদের হালচাল

পৃথিবীতে যত ধরণের পেশা রয়েছে তার মধ্যে সামুদ্রিক জেলেদের মাছ ধরার পেশা সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ পেশার অন্যতম একটি। প্রায় সনাতন পদ্ধতির নৌকা আর জাল সম্বল করে সামুদ্রিক জেলেরা একদিকে যেমন প্রতিকূল প্রকৃতির সাথে জীবন বাজি রেখে মাছ শিকার করতে সাগরে যায় অন্যদিকে তেমনই রয়েছে জলদস্যুর অপতৎপরতা।

ফলশ্রুতিতে নৌকা, জাল, ধৃত মাছ সর্বোপরি জীবন হারানোর ঝুঁকি থাকা স্বত্বেও মূলত বংশগত এই পেশা থেকে বের হয়ে আসতে না পারার করণে এইসব জেলেরা সমুদ্রে মাছ শিকারে যায় এবং জীবন তুচ্ছ করে দেশের সামুদ্রিক মৎস্য উৎপাদনে রাখে গুরুত্বপূর্ণ অবদান। …বিস্তারিত

ক্যাটাগরি: উপকূলীয় ও সামূদ্রিক | পরিবেশ | মাৎস্য জীববৈচিত্র্য | মাৎস্য ব্যবস্থাপনা | লাইভলিহুড

জাহাজভাঙ্গা কার্যক্রমঃ বিপন্ন মানুষ, মাছ আর পরিবেশ

চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ড এলাকায় জড়ো করা ভাঙ্গা জাহাজের সারি (গুগল স্যাটেলাইট ইমেজ)

চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ড এলাকায় জড়ো করা ভাঙ্গা জাহাজের সারি (গুগল স্যাটেলাইট ইমেজ)

জাহাজভাঙ্গা কার্যক্রমের ফলশ্রুতিতে চট্টগ্রামের উপকূলীয় অঞ্চলের পরিবেশ, মানুষ, মাছ ও অন্যান্য প্রাণীকুলের ওপর ইতোমধ্যে অনেক নেতিবাচক প্রভাব পড়েছে, বর্তমানেও পড়ছে এবং ধরে নেয়া যায় ভবিষ্যতে আরো পড়বে। সবকিছু মিলিয়ে তা দিন দিন …বিস্তারিত

ক্যাটাগরি: ইভেন্ট | পরিবেশ | প্রকল্প | প্রকাশনা | ভিডিও | মাৎস্য ব্যবস্থাপনা | লাইভলিহুড | স্বাদুপানি

মৎস্যসম্পদ ও মানুষের জীবনমান উন্নয়ন এবং পরিবেশ রক্ষায় সমাজ ভিত্তিক মৎস্যব্যবস্থাপনা প্রকল্পের ভূমিকা

বিগত প্রায় কয়েক দশক ধরে পরিবেশ বিপর্যয় ও মানুষ সৃষ্ট বিভিন্ন কারণে সর্বোপরি সুষ্ঠ মৎস্যব্যবস্থাপনার অভাবে আমাদের মৎস্যসম্পদ দিনে দিনে হ্রাস পাচ্ছে। সুচিহ্নিত কারণসমূহ হচ্ছে-

কৃষি জমি ও আবাসন সম্প্রসারণ অবৈধ দখল, পলি জমা ও অন্যান্য কারণে জলাভূমি ভরাট শুষ্ক মৌসুমে মাছের আবাসস্থল সংকোচন মাত্রাতিরিক্ত ও ক্ষতিকারক বিভিন্ন উপায়ে মৎস্য আহরণ কৃষি জমিতে ব্যাপক রাসায়নিক সার ও কীটনাশকের ব্যবহার আন্তঃনদী সংযোগ ক্রমান্বয়ে হ্রাস প্রচলিত মৎস্য আইনের যথাযথ প্রয়োগের অভাব

এই পরিস্থিতি থেকে উত্তরনের লক্ষ্যে সমাজ ভিত্তিক মৎস্যব্যবস্থাপনা প্রকল্প মৎস্য ব্যবস্থাপনায় দরিদ্র মৎস্যজীবী ও স্থানীয় জনগণকে …বিস্তারিত