প্রকৃতিতে মাছ, ব্যাঙ, সরীসৃপ, পাখিসহ মেরুদণ্ডী প্রাণিকুলের প্রায় ৭০ টি প্রজাতির স্ত্রীরা পুরুষের অংশগ্রহণ ছাড়াই বংশ বিস্তার করতে পারে। পুরুষের অংশগ্রহণ ছাড়াই (অর্থাৎ পুরুষ দ্বারা ডিম্বাণুর নিষিক্ত হওয়া ছাড়াই) স্ত্রী প্রাণীরা যে প্রক্রিয়ায় বংশবিস্তার করে সেই প্রক্রিয়াকে বলা হয় পার্থেনোজেনেসিস [English- Parthenogenesis (from Gr. parthenos means virgin and genesis means creation)]। সাধারণত অমেরুদণ্ডী প্রাণীদের (যেমন- এফিড, নিমাটোড, মাছি ইত্যাদি) মধ্যে এই প্রক্রিয়া দেখতে পাওয়া যায়। তবে মেরুদণ্ডীদের মধ্যেও এই প্রক্রিয়ায় বংশবিস্তারের বেশ কিছু প্রমাণ বিজ্ঞানীরা পেয়েছেন।

মাছের মধ্যে বেশ কিছু হাঙ্গর (যেমন- bonnethead shark, white-spotted bamboo shark, Atlantic blacktip shark ইত্যাদি) রয়েছে যাদের স্ত্রীরা পার্থেনোজেনেসিস প্রক্রিয়ায় বংশবিস্তার করে থাকে। তবে এই প্রক্রিয়ায় স্ত্রী হাঙ্গর থেকে কেবলমাত্র স্ত্রী হাঙ্গরই জন্ম হয়। ফলে নতুন প্রজন্মের মধ্যে নতুন কোন জেনেটিক বৈশিষ্ট্য প্রকাশ পায় না। যেহেতু জেনেটিক বৈশিষ্ট্যের কোন ভেরিয়েশন আসে না এবং স্ত্রী থেকে নতুন কোন পুরুষের সৃষ্টি হয় না তাই এই প্রক্রিয়াকে একটি আপদকালীন প্রজনন প্রক্রিয়া হিসেবে বিবেচনা করা হয়।

প্রকৃতিতে স্তন্যপায়ীদের মাঝে পার্থেনোজেনেসিস প্রক্রিয়ার কোন প্রমাণ এখনও পাওয়া না গেলেও গবেষণাগারে এই প্রক্রিয়ায় ইঁদুর ও খরগোশের বংশবিস্তার করা সম্ভব হয়েছে।

তথ্যসূত্রঃ


Visited 863 times, 1 visits today | Have any fisheries relevant question?
মাছ কি পার্থেনোজেনেসিস প্রক্রিয়ায় বংশবিস্তার করতে পারে?

Visitors' Opinion

এ বি এম মহসিন

প্রফেসর, ফিশারীজ বিভাগ, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, রাজশাহী-৬২০৫, বাংলাদেশ। বিস্তারিত ...

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.